শনিবার , ২০ মে ২০২৩ | ১৩ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
  1. অন্যান্য
  2. অপরাধ
  3. অর্থনীতি
  4. আইন-আদালত
  5. আন্তর্জাতিক
  6. আরো
  7. এক্সক্লুসিভ নিউজ
  8. খুলনা বিভাগ
  9. খেলাধুলা
  10. চট্টগ্রাম বিভাগ
  11. চাকরি
  12. জাতীয়
  13. ঢাকা বিভাগ
  14. তথ্য-প্রযুক্তি
  15. ধর্ম

বৃষ্টির পানি সংরক্ষণে ব্র্যাকের ট্যাংকি বিতরণ করলেন উপমন্ত্রী

প্রতিবেদক
admin1
মে ২০, ২০২৩ ৯:৩৩ অপরাহ্ণ

মোঃ রুবেল খান, মোংলা বাগেরহাট:

জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাবে ক্ষতিগ্রস্ত উপকূলীয় অঞ্চলে সুপেয় পানির সংকট মোকাবিলায় সহজ ও সর্বোত্তম ব্যবস্থা হিসেবে ডেনমার্ক সরকারের মিনিস্ট্রি অব ফরেন অ্যাফেয়ার্সের অর্থায়নে বৃষ্টির পানি সংরক্ষণ পদ্ধতি বাস্তবায়নে কাজ করছে ব্র্যাকের জলবায়ু পরিবর্তন কর্মসূচি।

শুক্রবার (১৯ মে) সকাল ১১টায় “বৃষ্টির জল সংগ্রহের মাধ্যমে নিরাপদ পানীয় জলের নিরাপত্তা এবং জলবায়ু স্থিতিস্থাপকতা বৃদ্ধি করা” প্রকল্পের আওতায় মালগাজী ব্র্যাক অফিসে মোংলা উপজেলার প্রায় দুই শতাধিক সুবিধাভোগিদের মাঝে প্রয়োজনীয় মালামালসহ পানির ট্যাংকি বিতরণ করা হয়।

জলবায়ু পরিবর্তন কর্মসূচি ব্র্যাকের মোংলা শাখার প্রোজেক্ট ম্যানেজার মোঃ সফিকুর রহমান’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পরিবেশ,বন ও জলবায়ু পরবির্তন মন্ত্রণালয়ের উপমন্ত্রী বেগম হাবিবুন নাহার। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আবু তাহের হাওলাদার।

উপমন্ত্রী ব্র্যাকের এই উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়ে ও সাফল্য কামনা করে বলেন, ব্র্যাক জলবায়ু ঝুঁকিপূর্ণ মানুষের জন্য কাজ করে যাচ্ছে এবং ঝুঁকিপূর্ণ মানুষের আর্থ সামাজিক উন্নতি করছে।

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন, ব্র্যাক মোংলা শাখার এরিয়া ম্যানেজার তৃপ্তী সরদার, এরিয়া ম্যানেজার মোঃ শাহবুদ্দিন, মনিটরিং এন্ড ইভালুয়েশন অফিসার কাজী মেহেদী হাসান, ফিল্ড ইন্জিনিয়ার রবিউল ইসলাম ও অসেশ চাকমা, মোংলা থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোহাম্মদ সামসুদ্দীন, উপজেলা যুবলীগের সভাপতি ইস্রাফিল হাওলাদার, পৌর ১নং ওয়ার্ড আ’লীগের সাবেক সভাপতি বেল্লাল হোসেন প্রমুখ।

মোংলা উপজেলার ৬টি ইউনিয়নেই বৃষ্টির পানি সংরক্ষণ পদ্ধতি স্থাপনের মাধ্যমে জলবায়ু ঝুঁকিপূর্ণ মানুষের জন্য সারাবছর নিরাপদ পানির ব্যবস্থা করা ও স্বল্প দূরত্বে নিরাপদ খাবার পানির উৎস তৈরির মাধ্যমে মোংলা উপজেলার জলবায়ু প্রভাবজনিত কারণে নিরাপদ পানিবঞ্চিত মানুষদের জীবনমান উন্নত করাই হলো প্রকল্পের প্রধান উদ্দেশ্য। মোংলার ৬টি ইউনিয়নের ৫৪টি ওয়ার্ডের মানুষের জন্য নিরাপদ খাবার পানি সরবরাহ করা।

যারা জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে ঝুঁকিপূর্ণ দরিদ্র ও অতি-দরিদ্র পরিবার ও যাদের বর্তমানে নিরাপদ খাবার পানির সংস্থান নেই তারাই এ প্রকল্পের মূল সুবিধা ভোগ করতে পারবেন।

প্রকল্পটি বাংলাদেশের জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাবজনিত ঝুঁকি মোকাবেলায় টেকসই উন্নয়নকে প্রাধান্য দিয়ে জলবায়ুজনিত ঝুঁকিতে থাকা দরিদ্র ও অতি-দরিদ্র পরিবারের নিরাপদ খাবার পানির উৎস তৈরির মাধ্যমে ওই পরিবারগুলোর অভিযোজন সক্ষমতা বৃদ্ধি করবে, যা সরকারের টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা (এসডিজি-৬) অর্জনে সহায়ক ভূমিকা পালন করবে।

উল্লেখ্য, ব্র্যাক ২০১৯ সাল থেকে মোংলা উপজেলার জলবায়ু ঝুঁকিপূর্ণ মানুষের জন্য কাজ করে আসছে। ২০১৯ সালে ব্রাক কমিউনিটি পর্যায়ে পানি বিশুদ্ধকরণ প্লান্ট স্থাপন কর। ২০২০ ও ২০২১ সালে খানা বা পরিবার পর্যায়ে ১২৭৫ টি বৃষ্টির পানি সংরক্ষণ পদ্ধতি স্থাপন করে। ২০২২ সালে খানা বা পরিবার পর্যায়ে ১২০০টি পাবলকি বিল্ডিং বা প্রতিষ্ঠান পর্যায়ে ৫ টি এবং স্বাস্থ্য কেন্দ্র পর্যায়ে ১টি বৃষ্টির পানি সংরক্ষণ পদ্ধতি স্থাপন করে।

চলতি বছর ২০২৩ সালে খানা বা পরিবার পর্যায়ে ৩০০০ টি, পাবলিক বা প্রতিষ্ঠান পর্যায়ে ১৫ টি এবং স্বাস্থ্য কেন্দ্র পর্যায়ে ৫টি বৃষ্টির পানি সংরক্ষণ পদ্ধতি এবং ২ টি কমিউনিটি পর্যায়ে ভূ-উপরিভাগের পানি পরিশোধনের টার্গেট রয়েছে।

সর্বশেষ - অপরাধ

আপনার জন্য নির্বাচিত