https://www.crimebanglanews.com/
ঢাকাবৃহস্পতিবার, ২৭শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, বিকাল ৫:১৯
আজকের সর্বশেষ সবখবর

রাতে বাবার মৃত্যু সকালে বাবার লাশ রেখে পরীক্ষা কেন্দ্রে মেরাজ

বিপুল মিয়া,ফুলবাড়ী (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি:
ডিসেম্বর ২, ২০২১ ১০:৩৬ অপরাহ্ণ
পঠিত: 46 বার
Link Copied!

বাড়িতে বাবার লাশ রেখে অশ্রু শিক্ত নয়নে এইচএসসি পরীক্ষা দিল এক পরীক্ষার্থী। অথচ বৃহস্পতিবার সকালে বাবার পা ছুঁয়ে দোয়া নিয়ে পরীক্ষা কেন্দ্রে যাওয়ার কথা ছিল তার। এর আগে বুধবার মধ্য রাতে নিজ বাড়ীতে হার্ট অ্যাটাকে মৃত্যুবরণ করেন তার বাবা শরিফুল হক মিল্টন (৪৭)। হতভাগ্য এ পরীক্ষার্থীর নাম মেরাজ হক। সে ফুলবাড়ী ডিগ্রী কলেজের বিএম শাখার শিক্ষার্থী।

তার বাড়ী উপজেলার বড়ভিটা ইউনিয়নের হকটারী গ্রামে।বৃহস্পতিবার উপজেলার সাইফুর রহমান সরকারি কলেজ পরীক্ষা কেন্দ্রে গিয়ে দেখা যায়, ৩ নম্বর কক্ষে বসে হিসাব বিজ্ঞান বিষয়ের পরীক্ষা দিচ্ছে মেরাজ হক। তার রোল  নম্বর ৮৩১৪৪৪। এক হাতে চোখের পানি মুছে অন্য হাতে পরীক্ষার খাতায় লিখে চলছে সে। আবার ফুপিয়ে ফুপিয়ে কেঁদে উঠছে মাঝে মধ্যে।

আর শান্তনা দিয়ে যাচ্ছে পাশের পরীক্ষার্থী সহপাঠিরা। পরীক্ষা শুরুর কিছুক্ষনের মধ্যে তার বাবার মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়ায় গোটা কেন্দ্রে নেমে এসেছে শোকের ছায়া। বৃহস্পতিবার অধিকাংশ পরীক্ষার্থীর সাথে এসছেন  তাদের অভিভাবকরা। বাবা না থাকায় মেরাজের  সাথে এসেছেন তার খালু পলাশ হোসেন।

তিনি জানান , বাবাকে হারানোর পর ভেঙে পড়লেও স্বজনদের সান্তনায় কাঁদতে কাঁদতে পরীক্ষা দিতে আসে মেরাজ।সদ্য ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে ইউপি সদস্য পদে অংশগ্রহণ করেন, কিন্তু দুঃখজনক নির্বাচনে পরাজিত হয়। দুপুর আড়াইটার দিকে তার বাবার লাশ পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হবে।

সাইফুর রহমান সরকারি  কলেজর অধ্যক্ষ ও কেন্দ্র সচিব মো.রফিকুল ইসলাম  জানান, পরীক্ষার্থী মেরাজ হকের বাবার মৃত্যুর বিষয়টি আমরা শুনেছি। পরীক্ষা দেয়ার জন্য আমরা তাকে সান্তনা ও উৎসাহ দিয়েছি। তবে তাকে বিশেষ কোন সুবিধা দেয়া হয়নি। সে সবার সঙ্গে স্বাভাবিকভাবেই পরীক্ষা দিয়েছে।